ঢাকা, মঙ্গলবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০২০, ৬ আশ্বিন ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
Bangla Insider

হিলারি এতো উদাসীন কেন?

বিশ্বজুড়ে ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৫ মার্চ ২০১৭ রবিবার, ১২:২৭ পিএম
হিলারি এতো উদাসীন কেন? হিলারি ক্লিন্টনের প্রকাশিত সেই ছবি। ছবি: ফক্স নিউজ

মনোযোগ সহকারে পত্রিকায় মার্কিন ভাইস প্রেসিডেন্টের ই-মেইল কেলেঙ্কারির খবর দেখছেন একজন বিমান যাত্রী। সম্প্রতি এমন এক ছবি প্রকাশে শুরু হয়েছে আলোচনা। কারণ এ কোন সাধারণ বিমানযাত্রী নয়। তিনি স্বয়ং হিলারি ক্লিনটন।

২০১৬ সালের মার্কিন নির্বাচনে ডেমোক্রেট দলের প্রার্থী হিলারি ক্লিনটন নির্বাচনী প্রচারণার সময় ব্যক্তিগত ই-মেইল কেলেঙ্কারিতে প্রচণ্ড সমালোচনার মুখে পড়েছিলেন।

বেষ্টন থেকে নিউ ইয়র্ক গামী একটি প্লেনে হিলারিকে এভাবেই ক্যামেরা বন্দি করেন কেইটলেন কুইগ্লি নামের এক ফটোগ্রাফার। 

ইন্ডিয়ানা অঙ্গরাজ্যের গভর্নর থাকার সময় মার্কিন ভাইস প্রেসিডেন্ট মাইক পেন্স ব্যক্তিগত ই-মেইল অ্যাকাউন্ট ব্যবহার করে ‘স্পর্শকাতর বিষয়’ ও ‘হোমল্যান্ড সিকিউরিটি বিষয়ে আলোচনা করেছেন বলে আভিযোগ উঠেছে। সেই খবরই মনযোগ দিয়ে দেখছিলেন হিলারি ক্লিনটন।

তাঁর এই ছবি দেখে এফবিআই’র এক কর্মকর্তা রাষ্ট্রের একজন প্রতিনিধি হিসেবে একে হিলারির অতিরিক্ত উদাসীনতা বলে আখ্যায়িত করেছেন। তবে এটা কোন অপরাধ নয়।

এদিকে মাইক পেন্সের মুখপাত্র মার্ক লোটের জানিয়েছেন, পেন্স সরকারি কাজে তাঁর সরকারি ই-মেইলের পাশাপাশি ব্যক্তিগত ই-মেইলও ব্যবহার করেতেন, তবে তা সরকারি কাজেই ব্যবহৃত হত। বৃহস্পতিবার মাইক পেন্সের ই-মেইলটি প্রকাশ করা হয়।

ভাইস প্রেসিডেন্ট মাইক পেন্স ব্যক্তিগত ই-মেইল ব্যবহারের কথা স্বীকার করে নিলেও এটা ইন্ডিয়ানার আইন বহির্ভূত নয় বলে জোর দাবি করেছেন। এমনকি এটি হিলারি ক্লিন্টনের ব্যক্তিগত ই-মেইল ব্যবহারের মত কোন ঘটনা নয় বলেও মন্তব্য করেন তিনি।

উল্লেখ্য, ট্রাম্পের ভাইস প্রেসিডেন্ট প্রার্থী হিসেবে ২০১৬ সালের প্রচারণার সময় মাইক পেন্সই সরকারি কাজে ব্যক্তিগত ই-মেইল সার্ভার ব্যবহার নিয়ে তাঁদের প্রতিদ্বন্দ্বী হিলারি ক্লিনটনের তীব্র সমালোচনা করেছিলেন।



বাংলা ইনসাইডার/ফক্স নিউজ অবলম্বনে/এসএফ/আরএস